চলচ্চিত্রে অন্তত দশটির বেশী সিনেমায় কাজ করেছেন জনপ্রিয় চিত্র নায়ক শ্রাবণ শাহ

Spread the love
চিত্র নায়ক শ্রাবণ শাহ

স্টাফ রির্পোটার: বাংলাদেশ চলচিত্রে অন্তত দশটিরেও বেশী ছবিতে কাজ করেছেন চিত্র নায়ক শ্রাবণ শাহ। তিনি প্রায় ১০ টিরও বেশী ছবিতে কাজ করেছেন।

তার মধ্যে যে ছবিগুলো মুক্তি পেয়েছে তা হলো-তুকে ভালো বাসতেই হবে, ইঞ্চি ইঞ্চি প্রেম, দাবাং, অশান্ত মেয়ে, আপন মানুষ, পরশ প্রেমের ছোয়া, অস্ত্র ছাড় কলম ধরো, দ্যা স্টরি অফ সামারা, হুরমতি ও 143  আরো এ দুইটি ছবি ডাবিং শেষে মু্ক্তির অপেক্ষায় রয়েছে।

বাংলাদেশ চলচ্চিত্রের পরিচালক সমিতি, শিল্পী সমিতির যে কোন অনুষ্ঠানে অসংখ্য বার খুব প্রশংসার সাথে তিনি পারফরম্যান্স করেছেন। এ ছাড়াও তিনি দেশ ও দেশের বাহিরে শতাধিক স্টেজ পারফরম্যান্স করেছেন বলে জানা যায়।

চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে দুই জনপ্রিয় শিপ্লী মিশা সওদাগর ও জায়েদ খান।

তিনি চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে অভিনেতা মিশা জায়েদ পরিষদ এর পক্ষে কাজ করছেন। অথছ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন স্থগিত চেয়ে নির্বাচন কমিশনার ইলিয়াস কাঞ্চন বরাবর পাঠানো আইনি নোটিশে বলা হয়েছে তিনি মাত্র দুইটি ছবিতে কাজ করেছেন। উকিল নোটিশের মিথ্যা অভিযোগের কারণে সংবাদ সম্মেলনে শ্রাবণ শাহ্ তার মুক্তি প্রাপ্ত চলচ্চিত্রের নাম উল্লেখ করে তীব্র নিন্দা ও প্রতিক্রীয়া জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন স্থগিত করতে, নির্বাচন কমিশনার ইলিয়াস কাঞ্চন বরাবর আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছে। শিল্পী সমিতির সাবেক দুই সদস্য মো. সোহেল খান ও মো. হোসেন লিটনের পক্ষে নোটিশটি পাঠিয়েছেন সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী গোলাম মোহাম্মদ সাইফুর রহমান। উকিল নোটিশে, নির্বাচন স্থগিতের ৯টি কারণ দেখানো হয়েছে। তার মধ্যে রয়েছে, নিয়মবহির্ভূতভাবে ভোটার তালিকা থেকে সদস্যদের বাদ দেয়া, গঠনতন্ত্রের তোয়াক্কা না করে শিল্পীদের ভোটার তালিকায় জায়গা করে দেয়া, মো. সোহেল খান ও মো. হোসেন লিটন পূর্ণ সদস্য হওয়ার পরও তাদের নতুন ভোটার তালিকায় নাম না দেয়া।

উকিল নোটিশে আরও বলা হয়, এইচআর অন্তর ও আরিযান শাহ একটি এবং শ্রাবণ নামের একজন অভিনেতা দুটি সিনেমা করলেও তাদের পূর্ণ সদস্যপদ দেয়া হয়েছে। অথচ ১০টিরও বেশি সিনেমায় অভিনয় করার পরও সোহেল খান ও হোসেন লিটনের সদস্যপদ বাতিল করা হয়। শুধু তাই নয়, জনপ্রিয় অভিনেতা পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায়ের নামও ভোটার তালিকায় নেই।

এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনার ইলিয়াস কাঞ্চন জানান, উকিল নোটিশ এখনও হাতে পায়নি। নোটিশ হাতে পেলে তার পর পরবর্তী ব্যবস্থা নেব।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *