মদপান না করেই নেশায় বুঁদ হন তিনি

Spread the love

অনলাইন ডেস্ক: মদপান করে মাতাল হওয়াটা স্বাভাবিক। তাই বলে মদপান না করেই কেউ নেশাগ্রস্ত হয়ে পড়বে? অদ্ভুত শোনালেও বাস্তবে তেমনটিই ঘটছে যুক্তরাজ্যের এক ব্যক্তির ক্ষেত্রে। খাবার খেলেই তার শরীরে বেড়ে যায় অ্যালকোহলের মাত্রা!

যুক্তরাজ্যের সাফোকের লোয়েস্টফ্ট এলাকায় নিক নামে এমনই এক ব্যক্তির সন্ধান মিলেছে। তিনি  মদপান না করেও নেশাগ্রস্ত হয়ে পড়েন। প্রতিনিয়ত রক্তে অ্যালকোহলের মাত্রা পরীক্ষা করতে তাকে সঙ্গে রাখতে হয় ব্রেথ অ্যানালাইজার।

আসলে নিক বিগত ২০ বছর ধরে এবিএস বা অটো ব্রিওয়ারি সিনড্রোম নামে একটি রোগে ভুগছেন । এই রোগে আক্রান্ত কোনও ব্যক্তি কার্বোহাইড্রেট যুক্ত খাবার খেলেই, সেটি শরীরের ভিতরে গিয়ে রাসায়নিক বিক্রিয়ায় অংশ নেয়। সেসময় প্রচুর পরিমাণে ইথানল উৎপন্ন হতে থাকে। যা ক্ষুদ্রান্ত্রে পৌঁছলেই সর্বনাশ! মূহূর্তে আক্রান্ত ব্যক্তির রক্তে অ্যালকোহলের মাত্রা বেড়ে যায়।

একটি রাসায়নিক কারখানায় কাজ করার কারণে নিকের শরীরে বাসা বাঁধে এই রোগ। যদিও তিনি প্রথমে এ ব্যাপারে কিছুই জানতেন না। এমনকী একদিন কাজের সময় অজ্ঞানও হয়ে যান।

পরবর্তীতে একটি অনুষ্ঠান থেকেই এই রোগের কথা জানতে পারেন নিক এবং তার স্ত্রী। তারপরই রোগটি সম্পর্কে আরও পড়াশোনা করেন তিনি। তিনি কার্বোহাইড্রেটযুক্ত খাবার খেতে পারেন না। কিটো ডায়েট মেনে চলেন ৬২ বছর বয়সী নিক।

নিক জানান, কার্বোহাইড্রেটযুক্ত খাবার খেলেই তার শরীরে অ্যালকোহলের মাত্রা বেড়ে যায়। তিনি এটাও জানান, এই রোগ সম্পর্কে পড়াশোনা করার ফলে তিনি বেশ ভালভাবেই এর মোকাবিলা করতে পেরেছেন। তাই তিনি সাধারণ মানু্ষের মধ্যেও এই এবিএস রোগের ব্যাপারে সচেতনতা বাড়াতে চান। সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন