বিএনপির নাম শুনলেই সরকার আঁতকে উঠছে: সেলিমা রহমান

Spread the love

অনলাইন ডেস্ক: বিএনপির নাম শুনলেই সরকার ভয়ে আঁতকে উঠছে বলে মন্তব্য করেছেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য সেলিমা রহমান। তিনি বলেন, এ সরকারের পায়ের নিচে মাটি নেই। যে কোনো মুহূর্তে গণজাগরণ ও জাতীয়তাবাদী শক্তির জাগরণের মধ্য দিয়ে সরকারকে বিএনপিই ক্ষমতাচ্যুত করতে পারবে।

বুধবার রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে মহিলা দলের উদ্যোগে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া, স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস ও মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাসের রোগমুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে সেলিমা রহমান এসব বলেন।

তিনি বলেন, সারাদেশে এখন সরকারের স্টিম রোলার চলছে। ১২ নভেম্বর বিএনপির কোনো কর্মসূচি ছিল না। তার পরও নয়াপল্টন এলাকায় বিএনপি কার্যালয় পুলিশ দিয়ে ঘেরাও করে যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল, ছাত্রদলসহ দলের ৪০০-৫০০ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা দেওয়া হয়েছে, হয়রানি করছে। সরকারের দুঃশাসন থেকে মুক্ত হতে সবাইকে ভেদাভেদ ভুলে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

মহিলা দলের সহসভাপতি নুরজাহান মাহবুবের সভাপতিত্বে ও জ্যেষ্ঠ যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হেলেন জেরিন খানের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে দলের যুগ্ম মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, নেওয়াজ হালিমা আরলি, নিলোফার চৌধুরী মনিসহ মহিলা দলের নেতারা বক্তব্য দেন।

যুবদল নেতা লিয়নের সন্ধান দাবি : পল্টন থানা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক লিয়ন হককে অবিলম্বে জনসমক্ষে হাজির করার দাবি জানিয়েছে বিএনপি। বুধবার দলের কেন্দ্রীয় দপ্তরের দায়িত্বপ্রাপ্ত ও সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে এ দাবি জানানো হয়। এতে বলা হয়, লিয়নকে গত মঙ্গলবার থেকে পাওয়া যাচ্ছে না। সহকর্মী ও পরিবারের সদস্যরা থানাসহ বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ নিয়েও তার সন্ধান পাননি। তাদের ধারণা, লিয়নকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী আটক করে গোপন রাখছে।

বিবৃতিতে ফরিদপুর জেলা যুবদল সভাপতি রাজিব হোসেন, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সরেন, পিন্টুসহ কমপক্ষে ১২ জন নেতাকর্মীকে আটকেরও নিন্দা জানিয়ে তাদের মুক্তির দাবি জানানো হয়।