সরিষাবাড়ীতে ধান রোপনের নতুন যন্ত্র আবিষ্কার করলো মামুন

মোঃ সোহানুর রহমান সোহান, সরিষাবাড়ী (জামালপুর): জামালপুরের সরিষাবাড়ী উপজেলা ও মাদারগঞ্জ থানার সীমান্তবর্তী শ্যামগঞ্জ কালিবাড়ি এলাকার দেউবাড়ী গ্রামের বাচ্চু মিয়ার বড় ছেলে ফরিদুল ইসলাম মামুন ধান গাছ রোপনের নতুন একটি যন্ত্রের আবিষ্কার করেছে বলে জানাগেছে। কোনোপ্রকার জ্বালানী ও ইলেকট্রিক সংযোগ ছাড়াই ধান গাছ (চারা) রোপনের প্রযুক্তি আবিষ্কার করেছে বলে দাবি করেন মামুন।

আত্মপ্রত্যয়ী ফরিদুল ইসলাম মামুন জানান, তারা ৩ ভাই ১ বোন। তার বাবা ঢাকার ভ্যানচালক। মামুন সবার বড়[,তার ছোট ভাই রিপন হাসান ৯ম শ্রেণীতে,ছোট বোন নিপা আক্তার ৬ষ্ঠ শ্রেনীতে ও সবার ছোট ভাই ২য় শ্রেণীতে পড়াশোনা করে।
প্রায় ৩ বছর কঠোর পরিশ্রম করে একটি বাক্স,দুটি চাকাসহ অন্যান্য সরঞ্জামদিয়ে তৈরি করেছেন ঠেলাগাড়ি মত একটি গাড়ি সমৃদ্ধ মেশিন। এতে ব্যবহারে সাধারণ কৃষকরা অল্প পরিশ্রমে ও বিনা পয়সায় ধান গাছ (চারা) রোপন করতে পারবে বলে জানিয়েছে এই যুবক।

কম সময়ের মধ্যে যে কোন ভূমিতে চারা রোপন করতে পারবে। এতে একটি বাক্স ভিতরে চারা দিয়ে রাখলে গাড়িটি পিছন দিক টানলে তা নিচে পড়ে রোপন হবে।
তিনি বলেন, ‘এ সাফল্যের জন্য বিভিন্ন সরঞ্জামাদী কিনতে একাধিকবার বিভিন্ন স্থানে যেতে হচ্ছে। দীর্ঘদিনের গবেষণা আর পরিশ্রমের পর আজ সফলতা এসেছে। এখন বেশ ভালো লাগছে।

তিনি আরও জানান, যন্ত্রটি তৈরি করতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার দৃষ্টি ও যেকোন সংগঠন বা সংস্থার সহযোগীতা কামনা করেন আশাবাদী মামুন।
সহঙোগীতা পেলে প্রায় ১মাসের মধ্যে সম্পূর্ণভাবে তৈরি করা যাবে বলে বিজয় টিভিকে জানিয়েছে । শুধু রোপন যন্ত্র নয় বিভিন্ন গাছ ও গাছের পাতা থেকে বিভিন্ন প্রকার রং তৈরি করার কথাও জানান তিনি।

মতামত